Current Bangladesh Time
সোমবার জুন ২৫, ২০১৮ ৯:৫৩ পূর্বাহ্ন
Barisal News
Latest News
প্রচ্ছদ » দশমিনা, পটুয়াখালী, পটুয়াখালী সদর, সংবাদ শিরোনাম » সংখ্যালঘু নারীকে হাত-পা বেঁধে নির্যাতন
১২ মে ২০১৭ শুক্রবার ৬:১১:৪২ অপরাহ্ন
Print this E-mail this

সংখ্যালঘু নারীকে হাত-পা বেঁধে নির্যাতন
অনলাইন ডেস্ক


patuakhali-news-map পটুয়াখালী সংবাদ মানচিত্রপটুয়াখালীর দশমিনা উপজেলায় সংখ্যালঘু এক বিধবা নারীকে হাত-পা বেঁধে বিবস্ত্র করে নির্যাতন করার অভিযোগ উঠেছে।

সম্পত্তি দখলে বাধা দেওয়ার চেষ্টা করায় গত সোমবার সকালে পটুয়াখালীর দশমিনা উপজেলার আলীপুর ইউনিয়নের পূর্ব আলীপুর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।

নির্যাতনের শিকার নারীর নাম কানন বালা (৫০)। এ ঘটনায় গতকাল বৃহস্পতিবার কানন বালার ছেলে অসীম চন্দ্র দাস বাদী হয়ে দশমিনা থানায় ১৪ জনের নাম উল্লেখ করে একটি মামলা (নম্বর ১৩) করেছেন। কানন বালা এখন পটুয়াখালী ২৫০ শয্যার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

কানন বালা বলেন, ‘ওগো পাও ধইরা মাফ চাইছি। বাড়িঘর ছাইড়া ভারত চইলা যামু কইছি। তা-ও ওরা আমারে পাড়াইয়া মাটিতে ফালাইয়া রাখে।’

তবে নির্যাতনের কথা অস্বীকার করেছেন মামলার প্রধান আসামি আবুল হোসেন।

কানন বালার ছেলে অসীম জানান, সরকারের কাছ থেকে তাঁরা ৬০ শতাংশ জমি বন্দোবস্ত নেন এবং নিজেদের রেকর্ডভুক্ত সম্পত্তির পরিমাণ ১৯ শতাংশ। এই সম্পত্তিতে তাঁদের বসতঘর, পুকুর ও গাছপালা রয়েছে।

দীর্ঘদিন ধরে আবুল হোসেনসহ আশপাশের কয়েকজন এই সম্পত্তি দখলের জন্য নানাভাবে তাঁদের ভয়ভীতি দেখানো শুরু করে। সম্পত্তি না দিলে দেশ ছাড়া করা হবে বলেও হুমকি দেয়।

কানন বালা বলেন, দশমিনা উপজেলার একটি বাড়ি একটি খামার প্রকল্পে তাঁর ছেলে অসীম নৈশপ্রহরী ও পুত্রবধূ মাধবী রানী ঝাড়ুদারের কাজ করেন। ঘটনার দিন বাড়িতে কেউ ছিলেন না। সোমবার সকাল সাড়ে সাতটার দিকে আবুল হোসেন ও তাঁর ভাই বারেক প্যাদা লোকজন নিয়ে এসে তাঁদের বাড়ির গাছ কেটে ফেলতে থাকে। একপর্যায়ে লোকজন দিয়ে ঘর নির্মাণ শুরু করে।

কানন বালা অভিযোগ করেন, এ সময় তিনি বাধা দিলে আবুল হোসেন ও তাঁর লোকজন তাঁকে কিল-ঘুষি মারতে শুরু করে। তিনি মাটিতে পড়ে গেলে রশি দিয়ে তাঁর দুই পা এবং হাত ওড়না দিয়ে বেঁধে ফেলে। ক্রমাগত লাথি মারতে থাকে। পদদলিত করার একপর্যায়ে তিনি বিবস্ত্র হয়ে পড়েন।

অভিযোগ অস্বীকার করে আবুল হোসেন বলেন, কানন বালা যেটাকে নিজের জমি বলে দাবি করছেন সেখানে ৩০ বছর আগে তাঁর দোকান ছিল। এটা সরকারি খাসজমি। তিনি জমি বন্দোবস্ত পেতে আবেদন করে পাননি। গ্রাম্য সালিসে তাঁকে ওই জায়গায় ঘর তুলে ব্যবসা করতে বলা হয়েছে। সে অনুসারে তিনি ঘর তুলতে যান। ওই সময় কানন বালা চেঁচামেচি করে নিজেই ঘরের জিনিসপত্র ভাঙচুর শুরু করেন। নিজেই তাঁর পরনের পোশাক ছিঁড়ে ফেলেন। তিনি কানন বালাকে ‘মানসিক ভারসাম্যহীন নারী’ বলে উল্লেখ করেন।

দশমিনা থানার সহকারী উপপরিদর্শক (এএসআই) হিরণ চন্দ্র জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ কানন বালাকে প্রায় বিবস্ত্র অবস্থায় উদ্ধার করে এবং চিকিৎসার জন্য উপজেলা সদরে নিয়ে আসে। তিনি জানান, জমিতে ঘর তোলার কাজ বন্ধ করে দিয়ে এসেছেন।

দশমিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি তদন্ত) মো. ইউনুচ আলী বলেন, এ ঘটনায় গতকাল কানন বালার ছেলে অসীম চন্দ্র দাস বাদী হয়ে দশমিনা থানায় ১৪ জনের নাম উল্লেখ করে একটি মামলা করেছেন।

পটুয়াখালীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাহেব আলী পাঠান বলেন, এ ঘটনায় আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। – সূত্র: প্রথম আলো

সম্পাদনা: বরি/প্রেস/মপ

শেয়ার করতে ক্লিক করুন:

আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
(মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। amaderbarisal.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের মিল আছেই এমন হবার কোনো কারণ নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে amaderbarisal.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নেবে না।)
বরিশাল জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগ
বরিশালে মেয়র পদে আ.লীগের প্রার্থী সাদিক আবদুল্লাহ
বরিশালে বিএনপির মেয়র প্রার্থী সরোয়ার
জনগণের ইচ্ছা পূরণই আমার ইশতেহার -সাদিক আবদুল্লাহ
ঐক্যবদ্ধভাবে সাদিককে এগিয়ে নেব -জেবুন্নেছা
বরিশাল সিটি নির্বাচনে জাপার মেয়র প্রার্থী তাপস
Recent: Mayor Hiron Barisal
Recent: Barisal B M College
Recent: Tender Terror
Kuakata News

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আমাদের বরিশাল ২০০৬-২০১৪

প্রকাশক: মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, সম্পাদক: রাহাত খান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: মোঃ জিয়াউল হক
৪৬১ আগরপুর রোড (নীচ তলা), বরিশাল-৮২০০।
ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, ই-মেইল: [email protected]