Current Bangladesh Time
বৃহস্পতিবার জুলাই ১৯, ২০১৮ ১১:৩৪ অপরাহ্ন
Barisal News
Latest News
প্রচ্ছদ » বরগুনা, বরগুনা সদর, বেতাগী » কর্মকর্তা-কর্মচারি শূন্য বেতাগী প্রাথমিক শিক্ষা অফিস
১২ জানুয়ারী ২০১৮ শুক্রবার ৩:০০:৪২ অপরাহ্ন
Print this E-mail this

কর্মকর্তা-কর্মচারি শূন্য বেতাগী প্রাথমিক শিক্ষা অফিস
বেতাগী প্রতিবেদক


barguna-news-map বরগুনা হিন্দু পরিবারকে উচ্ছেদের অভিযোগে একজন গ্রেফতার সংবাদ মানচিত্রবরগুনার বেতাগীতে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসে প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা, সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা, অফিস সহকারীসহ প্রধান শিক্ষক, সহকারি শিক্ষক ও দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরীর পদ শূন্য রয়েছে। ফলে দপ্তরের কার্যক্রম ও অধিকাংশ প্রতিষ্ঠানের পাঠদান ব্যাহত হচ্ছে।

জানা গেছে, এ উপজেলায় ১২৯ টি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। এর মধ্যে প্রধান শিক্ষকের ১২৯ টি পদের বীপরীতে প্রধান শিক্ষক রয়েছেন ৬৫ টি। শূন্য ৬৪ টি পদ। সহকারি শিক্ষকের ৬৪২ টি পদ খালি। কর্মরত রয়েছে ৫৫৬ টি। শূন্য পদ সংখ্যা ৮৭।

সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তার ৫টি পদের রয়েছে ২ টি, শূন্য ৩টি। ৫ টি অফিস সহকারী পদের মধ্যে কর্মরত মাত্র ১ জন। ৪ টি পদই খালি। দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরী ৭১ টি পদের মধ্যে রয়েছে ৩৪ টি। শূন্য ৩৭ টি।

দীর্ঘদিন ধরে কর্মকর্তা- কর্মচারি, বিপূল সংখ্যক শিক্ষক ও দপ্তরী না থাকায় উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষায় চলছে বেহালদশা। তবে শূন্য শিক্ষক নিয়োগের চাহিদা উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। যেসব বিদ্যালয় প্রধান শিক্ষক নেই ওই সব বিদ্যালয় সহকারি শিক্ষকদের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকের দায়িত্ব দিয়ে পরিচালনা করা হচ্ছে বিদ্যালয় গুলো।

এতে সংকটের সমাধান না হয়ে দ্বিমুখী সংকট তৈরি হচ্ছে। একদিকে ক্লাসে পাঠদানে শিক্ষক সংকট, অণ্যদিকে ভারপ্রাপ্তরা সঠিকভাবে তাদের সহকর্মীদের নিয়ন্ত্রনে করতে পারছেনা । ফলে এসব প্রতিষ্ঠান লেখাপড়ার মান নিম্মমুখী হচ্ছে। কেউ সঠিকভাবে দায়িত্ব পালন করতে পারছেনা।

সরেজমিনে দেখা গেছে, শিক্ষক সংকটের কারণে কয়েকটি বিদ্যালয় প্রায় বন্ধের উপক্রম হয়েছে। এর মধ্যে যেসব বিদ্যালয় দু‘জন করে শিক্ষক রয়েছে। সেই সব বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষককে প্রায়ই অফিসের কাজে উপজেলায় আসতে হয়। অন্য জন তিনি ছুঁটি কিংবা অসুস্থ থাকলে বিদ্যালয় বন্ধ থাকে।

আর তানা থাকলেও একজন শিক্ষককে পাঠদান পরিচালনায় চরম সংকটে পড়তে হয়। ওই একজন শিক্ষকে ৫ টি শ্রেনীতে পাঠদান করাতে গিয়ে কোন লেখা পড়াই হয়না। উপজেলা দেশান্তরকাঠী, লায়ন মোসলেম আলী খান,পূর্ব ফুলতলা প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সবচেয়ে করুন হাল।

দেশান্তরকাঠী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক পরিমল চন্দ্র অভিযোগ করেন, শিক্ষক সংকটে পড়াতে গিয়ে তাদের হিমশিম খেতে হচ্ছে।

বেতাগী উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত)নআব্দুস সালাম বলেন, প্রধান শিক্ষক পদে পদোন্নতি না হওয়ায় শিক্ষক সংকট সৃষ্টি হয়েছে। শূন্য পদের তালিকা ইতোমধ্যে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসারের মাধ্যমে সংশ্লিস্টদের জানানো হয়েছে। নতুন শিক্ষক নিয়োগ হলে এ সংকট আর থাকবে না।

সম্পাদনা: বরি/প্রেস/মপ

শেয়ার করতে ক্লিক করুন:

আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
(মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। amaderbarisal.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের মিল আছেই এমন হবার কোনো কারণ নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে amaderbarisal.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নেবে না।)
বরিশাল জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগ
পাসে দেশ সেরা বরিশাল
বাউফলে নানার হাতে শিশু নাতনী ধর্ষিত!
বরিশালে তাপমাত্রা ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস
২ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সবাই ফেল, শতভাগ পাস ৫ টিতে
পাসে শীর্ষে বরিশাল জেলা, দ্বিতীয় ঝালকাঠি
Recent: Mayor Hiron Barisal
Recent: Barisal B M College
Recent: Tender Terror
Kuakata News

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আমাদের বরিশাল ২০০৬-২০১৪

প্রকাশক: মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, সম্পাদক: রাহাত খান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: মোঃ জিয়াউল হক
৪৬১ আগরপুর রোড (নীচ তলা), বরিশাল-৮২০০।
ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, ই-মেইল: [email protected]