Current Bangladesh Time
বৃহস্পতিবার নভেম্বর ১৫, ২০১৮ ৮:৩৩ অপরাহ্ন
Barisal News
Latest News
প্রচ্ছদ » পটুয়াখালী, পটুয়াখালী সদর, বাউফল, সংবাদ শিরোনাম » বাউফলে বোরো চাষিদের মাথায় হাত
১১ জুলাই ২০১৮ বুধবার ১:১৫:১০ অপরাহ্ন
Print this E-mail this

বাউফলে বোরো চাষিদের মাথায় হাত
বাউফল প্রতিবেদক


patuakhali-news-map পটুয়াখালী সংবাদ মানচিত্রসিদ্ধান্ত ছিল চলতি বছর পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলার প্রান্তিক চাষিদের কাছ থেকে সরকার ন্যায্য মূল্যে বোরো ধান সংগ্রহ করবেন। এ ঘোষনায় কৃষকের মনে আশার আলো সঞ্চার হয়ে ছিল। কৃষকরা ভেবে ছিলেন সরকারের এই কার্যক্রমে হয়ত তারা লাভবান হবেন।

কিন্তু সে আশায় গুরে বালি হয়েছে জেলা খাদ্যকর্মকর্তাদের হঠাৎ এক সিদ্ধান্তের কারনে। এদিকে কৃষকরা স্থানীয় বাজারেও ধানের মূল্য কম পাওয়ায় আরও হতাশ হয়ে পড়েছেন।

অভিযোগ উঠেছে, বাউফল উপজেলা থেকে ৫০ মেট্টিক টন বোরো ধান সংগ্রহের কথা থাকলেও আশানুরুপ কমিশন না পাওয়ায় বাউফল উপজেলা থেকে বোরো ধান সংগ্রহ করেনি খাদ্য বিভাগ।

বাউফল উপজেলা কৃষি অফিস সূত্রে জানা যায়, চলতি বোরো মৌসুমে বাউফল উপজেলায় বোরো ধান আবাদ করা হয়েছে প্রায় ১হাজার ৪শ ৫ হেক্টর জমিতে। আর মোট উৎপাদিত ধানের পরিমান প্রায় ৭হাজার ৬শ মেট্টিক টন।

উপজেলার একাধিক কৃষকদের সাথে আলাপ করে জানা যায়, জমি তৈরী, সার, বীজ, কিটনাশক এবং ধান রোপন, কাটা এবং পরিবহন খরচসহ একর প্রতি বোরো আবাদে খরচ হয়েছে প্রায় ৪০হাজার টাকা। প্রতি একরে ফলন এসেছে ৬০মন ধান। সে হিসেব অনুযায়ী মনপ্রতি বোরো ধান আবাদে খরচ পড়েছে ৬শ ৬৭ টাকা। বর্তমানে প্রতিমন ধানের বাজার মূল্য রয়েছে ৭শ টাকা। কৃষকের প্রতি মনে লাভ হচ্ছে মাত্র ৩৩টাকা। অপর দিকে

সরকার এ বছর প্রতি কেজি বোরো ধানের মূল্য নির্ধারন করেছে ২৬টাকা। যা মন দ্বারায় এক হাজার চল্লিশ টাকা।
সরকার নির্ধারিত এই মূল্যে কৃষক পর্যায়ে ধান সংগ্রহ করা হলে লাভের মুখ দেখতে পারত উপজেলার প্রান্তিক পর্যায়ের কৃষকরা। কিন্তু রহস্যজনক কারনে বাউফল উপজেলা থেকে কোনো বোরো ধান সংগ্রহ করা হয়নি। সরকার কর্তৃক বরাদ্ধ অনুযায়ী বাউফল থেকে বোরো ধান সংগ্রহ না করায় ক্ষোভ জানিয়েছে কৃষক এবং কৃষি সংশ্লিষ্টরা।

উপজেলার নুরাইনপুর এলাকার কৃষক যাদব চন্দ্র মিস্ত্রী বলেন, আমরা জানতাম যে এ বছর বাউফল থেকে সরকারিভাবে বোরো ধান কেনা হবে। আমরা সেই আশাতেই বোরো ধানের আবাদ করি। কিন্তু সরকারিভাবে বোরো ধান না কেনার কারনে আমাকে অনেক টাকা লোকসান গুনতে হয়েছে।

প্রায় ৪একর জমিতে বোরো ধানের আবাদ করা এই কৃষক জানান, ভালো ফলন হওয়া সত্বেও দাম না পাওয়ার কারনে সামনের বছর আর বোরো ধানের আবাদ করব না। একই কথা জানান, কৃষক মাহাবুব শরীফ, সাইদুর রহমান, ওয়াজেদ খাঁ সহ আরো অনেকে।

কৃষকরা অভিযোগ করেন, বাউফল থেকে ধান কিনতে খাদ্য বিভাগের কর্মকর্তারা যে কমিশন আশা করেছিল, তা না পাওয়ার কারনেই মূলত বাউফল থেকে ধান ক্রয় করেনি খাদ্য বিভাগ।

এ বিষয়ে বাউফল উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা মো. আবদুস সোবাহান বলেন, আমরা বরাদ্ধ অনুযায়ী ধান ক্রয় করার জন্য প্রস্তুত ছিলাম কিন্তু জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মহোদয় বাউফল থেকে ধান ক্রয় না করে কলাপাড়া উপজেলা থেকে উক্ত ধান কৃষকদের কাছ থেকে ক্রয় করেছেন। এটা জেলার সিদ্ধান্তের বিষয়।

এ বিষয়ে জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক মো. শফিকুল ইসলাম জানান, পটুয়াখালী জেলার জন্য মোট বরাদ্ধ ছিল ৩শ মেট্টিক টন। যা পুরো জেলার জন্য পর্যাপ্ত নয়। এরপরে বাউফলে কোনো রাইস মিল না থাকার কারনে বাউফল থেকে ধান ক্রয় করা হয়নি। বিষয়টি জেলা কমিটির সাথে আলাপ করে করা হয়েছে। এখানে কমিশন নিয়ে যে অভিযোগ উঠেছে সম্পূর্ন মিথ্যা এবং ভিত্তিহীন।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, এ উপজেলায় একটি সেমি অটো রাইস মিলসহ অন্তত ৫টি রাইস মিল রয়েছে।

এ বিষয়ে বাউফল উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা অপূর্ব লাল সরকার বলেন, আমরা জানতাম বাউফল থেকে এ বছর বোরা ধান ক্রয় করবে খাদ্য বিভাগ। আমরা কৃষকদেরকে সেভাবেই বলেছি। কিন্তু ঠিক কি কারনে তারা ধান ক্রয় করেন নি তা আমার বোধগম্য নয়। তবে তারা ধান সংগ্রহ করলে কৃষক লাভবান হতো। এবং সামনের দিনে বোরো আবাদে তারা আরো উৎসাহিত হতো। কিন্তু এখন কৃষক দাম না পেয়ে হতাশ।

সম্পাদনা: বরি/প্রেস/মপ

শেয়ার করতে ক্লিক করুন:

আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
(মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। amaderbarisal.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের মিল আছেই এমন হবার কোনো কারণ নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে amaderbarisal.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নেবে না।)
বরিশাল জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগ
উজিরপুরের চেয়ারম্যান নান্টু খুনি বন্দুকযুদ্ধে নিহত
বরিশাল-১ আসনে আ.লীগের একক প্রার্থী হাসানাত আবদুল্লাহ
কর্মকর্তা শূন্য তালতলীতে প্রশাসনিক কার্যক্রমে স্থবিরতা
বরগুনার দুই আসনে নৌকা চান ৮৪ জন
উপকূলে ধেয়ে আসছে ‘গাজা’ : বন্দরে ২ নম্বর সতর্কতা
Recent: Mayor Hiron Barisal
Recent: Barisal B M College
Recent: Tender Terror
Kuakata News

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আমাদের বরিশাল ২০০৬-২০১৪

প্রকাশক: মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, সম্পাদক: রাহাত খান
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক: মোঃ জিয়াউল হক
৪৬১ আগরপুর রোড (নীচ তলা), বরিশাল-৮২০০।
ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, ই-মেইল: [email protected]