Current Bangladesh Time
রবিবার জানুয়ারী ২০, ২০১৯ ১:০৯ অপরাহ্ন
Barisal News
Latest News
প্রচ্ছদ » পিরোজপুর, পিরোজপুর সদর, মঠবাড়িয়া » বলেশ্বরের ভাঙনে স্টীমার ঘাট বিলীন, দুর্ভোগ চরমে
১ নভেম্বর ২০১৮ বৃহস্পতিবার ২:০০:০৫ অপরাহ্ন
Print this E-mail this

বলেশ্বরের ভাঙনে স্টীমার ঘাট বিলীন, দুর্ভোগ চরমে
ইসমাইল হোসেন হাওলাদার, মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি


মঠবাড়িয়ার বলেশ্বরের ভাঙনে স্টীমার ঘাট বিলীন, দুর্ভোগ চরমেপিরোজপুরের মঠবাড়িয়া তথা দক্ষিণাঞ্চলের উপকূলীয় বলেশ্বরের অব্যাহত ভাঙ্গনে বড়মাছুয়ার স্টীমার ঘাটের পাউবোর বেড়িবাঁধ নদী গর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। ফলে ঢাকা ও খুলনা থেকে আসা স্টীমারের যাত্রী সাধারণের তীরে উঠতে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

বলেশ্বরের অব্যহত ভাঙ্গনে স্টীমারের টিকেট বুকিং কাউন্টারসহ ৩টি দোকান যে কোন সময় নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যেতে পারে। এছাড়া ঢাকা ও খুলনা হতে আসা স্টীমারের যাত্রীরা ওঠানামায় চরম দুর্ভোগের স্বীকার হয়।

গত শনিবার ও রোববারের অব্যাহত ভাঙ্গনে বড়মাছুয়া স্টীমার ঘাটের পল্টনের সিড়ি, ৩টি বসত ঘর ও ৬টি দোকান ঘর নদীগর্ভে বিলীন হয়ে যায়। বাধ্য হয়ে যাত্রীদের ট্রলারের মাধ্যমে স্ট্রীমারে উঠতে হচ্ছে।

এদিকে ঘাট সংলগ্ন দোকানের মালামাল হারিয়ে ব্যবসায়ীরা নিঃস্ব হয়ে পড়েছে ও বসত ঘর হারিয়ে ৩টি পরিবারের সদস্যরা খোলা আকাশের নিচে মানবেতর জীবন যাপন করছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শনিবার রাতে বড় মাছুয়া স্ট্রীমার ঘাট এলাকা হঠাৎ করে ভাঙ্গনের কবলে পড়লে স্টীমারের পল্টনে ওঠার সিড়ি ও ৩টি বসতঘরসহ ৬টি দোকান বলেশ্বরে বিলীন হয়ে যায়।

এতে ব্যবসায়ী হাবিব হাওলাদার (৬০), আ. মালেক (৫০), হানিফ বেপারী (৬৫), জাহাঙ্গীর হাং (৪০), আল আমিন (৩০), বেল্লাল (৩৫), আ. খালেক আকন (৬০), শাহিন (৩৫) ও কৃষকের আইপিএম ক্লাব ঘর সম্পূর্ণ পল্টনের নিচে নদী গর্ভে বিলীন হয়ে যায়।
ব্যবসায়ী মালেক খান জানান, গত ৩০ বছর ধরে বেড়ী বাধের বাইরে ঘাট সংলগ্ন হোটেল ও মুদি দোকান দিয়ে ব্যবসা করে জীবিকা নির্বাহ করে আসছি। কিন্তু নদী ভাঙ্গনে তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও বসত বাড়ী চলে যাওয়ায় সে এখন স্ত্রী, সন্তান নিয়ে বিপাকে পড়েছে।

স্ট্রীমার ঘাটের সারেং আলী আজম জানান, ১৯৮৮ সালে বিআইডব্লিউটিসি কর্তৃক নির্মিত ঘাটটির মাটিতে বড় ধরনের ফাটল দেখা দেয়। শনিবার রাতেই হঠাৎ করে সেই ফাটল ধরেই দোকান ও বাসাবাড়ী নিয়ে ঘাটের সিড়ি সহ নদী গর্ভে সব বিলীন হয়ে যায়।

বড়মাছুয়া স্টীমার ঘাটের টার্নিমাল সুপারিনডেন্ট ফেরদৌস আহমেদ বলেন, দৈনিক দুটি স্টীমার এই ঘাট থেকে ঢাকা ও খুলনা রুটে চলাচল করে। ঘাট ও সিড়ি নদী গর্ভে বিলীন হওয়ার বিষয়টি তাৎক্ষণিক উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। যাত্রীদের পারাপারের জন্য তাৎক্ষণিক দুটি ট্রলারের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট ইউ,পি চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন হাওলাদার জানান, নদী ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোকে ২০ কেজি করে চাল দেয়া হয়েছে।

সম্পাদনা: বরি/প্রেস/মপ

শেয়ার করতে ক্লিক করুন:

আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
(মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। amaderbarisal.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের মিল আছেই এমন হবার কোনো কারণ নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে amaderbarisal.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নেবে না।)
সংসদের গুরুত্বপূর্ণ পদে দক্ষিণাঞ্চল থেকে আলোচনায় যারা
পায়রা সেতুর অগ্রগতি ৫০ শতাংশ
ঘুমন্ত খালা-ভাগ্নিকে পুড়িয়ে হত্যা, আশঙ্কাজনক ১
গোপালগঞ্জে বাইকের ধাক্কায় বরিশালের শিশু নিহত
তেলের ট্যাংকিতে ফেনসিডিল পাচার: ৭০০ বোতলসহ আটক ২
Recent: Mayor Hiron Barisal
Recent: Barisal B M College
Recent: Tender Terror
Kuakata News

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আমাদের বরিশাল ২০০৬-২০১৪

প্রকাশক ও নির্বাহী সম্পাদক: মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, সম্পাদক: রাহাত খান
৪৬১ আগরপুর রোড (নীচ তলা), বরিশাল-৮২০০।
ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, ই-মেইল: [email protected]