Current Bangladesh Time
মঙ্গলবার মে ২৬, ২০২০ ৫:২৯ পূর্বাহ্ন
Barisal News
Latest News
প্রচ্ছদ » জাতীয়, সংবাদ শিরোনাম » আজ সরকারি হাসপাতাল বিনামূল্যে পাবে বেক্সিমকোর রেমডিসিভির
২৩ মে ২০২০ শনিবার ২:০৭:১৩ অপরাহ্ন
Print this E-mail this

আজ সরকারি হাসপাতাল বিনামূল্যে পাবে বেক্সিমকোর রেমডিসিভির


বিশেষ প্রতিবেদক।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সূত্রে জানা যায়, বৃহস্পতিবার (২১ মে) বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস থেকে এক হাজার রেমডেসিভির হস্তান্তরের প্রক্রিয়ার পর সেগুলো চলে যায় ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর। নির্দিষ্ট প্রক্রিয়া শেষে এক হাজার রেমডেসিভির করোনা বিশেষায়িত হাসপাতালগুলোতে পৌঁছানোর জন্য কাজ শুরু করে দেয় সংস্থাটি।

এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) ও দায়িত্ব মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা বলেন, রেমডেসিভিরগুলো স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে আসার পর থেকেই সেগুলো হাসপাতালে পোঁছানোর লক্ষে কাজ শুরু করে ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। খুব দ্রুতই হাসপাতালে করোনা আক্রান্ত গুরুতর অসুস্থ রোগীদের চিকিৎসায় পৌঁছে যাবে রেমডেসিভির।

কবে নাগাদ ১ হাজার রেমডেসিভির করোনা বিশেষায়িত হাসপাতালগুলোতে পৌঁছাবে এ বিষয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হাসপাতাল শাখার পরিচালক ডা.আমিনুল হাসান বলেন,  এক হাজার রেমডেসিভির হাসপাতালে পাঠানোর সকল কার্যক্রম ইতমধ্যেই সম্পূর্ণ করা হয়েছে। আশা করা যায় আজ করোনা বিশেষায়িত হাসপাতালগুলোতে পৌঁছাবে রেমডেসিভির। বিনামূল্যে এই এক হাজার রেমডেসিভির দিয়ে করোনা আক্রান্ত গুরুতর অসুস্থ রোগীদের চিকিৎসা সেবা দেওয়া হবে।

এর আগে বৃহস্পতিবার (২১ মে) স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কাছে বিশ্বের প্রথম অনুমোদিত জেনেরিক রেমডেসিভির হস্তান্তর করে বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালস। এ সময় স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকের হাতে স্যাম্পল ওষুধ তুলে দেন বেক্সিমকো ফার্মার ব্যবস্থাপনা পরিচালক নাজমুল হাসান পাপন।

স্যাম্পল হস্তান্তর অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, বিশ্বের কোথাও কোনো দেশে করোনা রোগীদের শতভাগ সুস্থ করে তোলার মতো ভ্যাকসিন বা ওষুধ উৎপাদন হয়নি। যুক্তরাষ্ট্রসহ বেশ কয়েকটি দেশে রেমডেসিভির ওষুধটি কার্যকর হচ্ছে বলে প্রমাণ পাওয়া গেছে। জরুরি ভিত্তিতে চিকিৎসার জন্য এটির অনুমোদন দিয়েছে ওষুধ প্রশাসন অধিদফতর। ওষুধ বিশেষজ্ঞদের পরামর্শে করোনাভাইরাস রোগীদের এই ওষুধে চিকিৎসা দেওয়া হবে।

করোনাভাইরাসে নিরাময়ে কার্যকরী কোনো ওষুধ এখনো আবিষ্কার হয়নি। তবে উপসর্গ নিরাময়ে প্রচলিত কিছু ওষুধ ব্যবহার হচ্ছে বিভিন্ন দেশ। এগুলোর মধ্যে হাইড্রোক্সিক্লোরোকুইন, ফ্যাভিপিরাভির ও রেমডেসিভির পরীক্ষামূলকভাবে তৈরি করতে বাংলাদেশ সরকারের অনুমতি পেয়েছে স্কয়ার ফার্মা, এসকেএফ, বীকন, বেক্সিমকো, জিসকা ও ইনসেপ্টা ফার্মাসিউটিক্যালস।

গত বৃহস্পতিবার দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কনফারেন্স রুমে নিজেদের উৎপাদিত এক হাজার রেমডিসিভির ইনজেকশন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকের হাতে তুলে দেন বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালসের ম্যানেজিং ডিরেক্টর নাজমুল হাসান পাপন।

এ সময় পাপন বলেন, “রেমডিসিভিরের জরুরি ব্যবহারের জন্য আমেরিকায় অনুমতি দিয়েছে। অন্যান্য ওষুধের চেয়ে এ ওষুধের দাম কিছুটা বেশি। একজন রোগীর ৬টি থেকে ১১টি ইনজেকশন প্রয়োজন হয়। একটি ইনজেকশনের দাম যদি সাড়ে ৫ থেকে ৬ হাজার টাকা হয়, তাহলে প্রায় ৬০ হাজার টাকা প্রয়োজন হয় একজন রোগীর।”

“যেহেতু বাংলাদেশ সরকার সরকারি হাসপাতালে করোনা রোগীদের ফ্রি চিকিৎসা দিচ্ছে, তাই বেক্সিমকো থেকে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি বাংলাদেশে সরকারি হাসপাতালে যত রোগী আছে তাদের যদি রেমডিসিভি প্রয়োজন হয়, তাহলে বিনামূল্যে দেওয়া হবে।”

বেক্সিমকো ফার্মাসিউটিক্যালসের ম্যানেজিং ডিরেক্টর জানান, এ জন্য তারা সরকারের কাছ থেকেও টাকা নেবেন না।

“আমাদের যদি বলা হয় কোনো রোগীর এ ওষুধ প্রয়োজন তাহলে আমরা সেখানে পৌঁছে দেব।”

অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেন, “রেমডিসিভিরের জরুরি ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের এফডিএ। একই ধারায় বাংলাদেশের ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তরও এ ওষুধের ইমার্জেন্সি ইউজের অনুমতি দিয়েছে। বেক্সিমকো প্রথম কোম্পানি যে এ ওষুধটি এ অঞ্চলে উৎপাদন করেছে। এ ওষুধটি মুমূর্ষু রোগীদের দেওয়া হবে। প্রয়োজন অনুযায়ী বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকেরা রোগীদের এ ওষুধ দিবে।”

“কোভিড রোগীর জন্য এখনো কোনো ভ্যাকসিন তৈরি হয়নি, এখনো এমন কোনো ওষুধও আসেনি যা খেলেই সুস্থ হয়ে যাবে। বেশ কিছু ওষুধ বাজারে আসছে রেমডিসিভির তেমন একটি ওষুধ। আমাদের ডাক্তাররা ট্রিটমেন্ট প্রোটোকলে কিছু ওষুধ যুক্ত করেছে। আমরা আশা করি, এ ওষুধটিও প্রটোকলে যুক্ত হবে।”


শেয়ার করতে ক্লিক করুন:

আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
(মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। amaderbarisal.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের মিল আছেই এমন হবার কোনো কারণ নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে amaderbarisal.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নেবে না।)
রোজা শেষে এল খুশির ঈদ, তবে ভিন্ন আবহে
করোনায় আ.লীগের সাবেক সাংসদ হাজী মকবুলের মৃত্যু
ঘরে বসে ঈদের আনন্দ করুন, স্বজনের খোঁজ নিন ভার্চ্যুয়ালে: প্রধানমন্ত্রী
আজ সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী
চাঁদ দেখা যায়নি, ঈদ সোমবার
Recent: Mayor Hiron Barisal
Recent: Barisal B M College
Recent: Tender Terror
Kuakata News

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আমাদের বরিশাল ২০০৬-২০২০

প্রকাশক ও নির্বাহী সম্পাদক: মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, সম্পাদক: রাহাত খান
৪৬১ আগরপুর রোড (নীচ তলা), বরিশাল-৮২০০।
ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, ই-মেইল: hello@amaderbarisal.com