Current Bangladesh Time
বুধবার এপ্রিল ১৪, ২০২১ ১:৪৯ পূর্বাহ্ন
Barisal News
Latest News
প্রচ্ছদ » আমতলী, বরগুনা » আমতলীতে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার দাবীতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা
২ এপ্রিল ২০২১ শুক্রবার ৩:৪৬:৪৩ অপরাহ্ন
Print this E-mail this

আমতলীতে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার দাবীতে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা


জাকির হোসেন,আমতলী (বরগুনা) প্রতিনিধিঃ

সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের অভিযোগ এনে আমতলীর অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মকর্তা বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃগোলাম মোস্তফা,অবপরপ্রাপ্ত কৃষি অফিসার মোঃজব্বার মল্লিক, কলেজ অধ্যক্ষ মোঃসুজাউদ্দিন মাহমুদ, প্রধান শিক্ষক মোঃমোয়াজ্জেম হোসেন, সরকারী স্কুল শিক্ষক মোঃ রাসেল মৃধা ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ইউপি সদস্য সফেজ উদ্দিন প্যাদাসহ ৪৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা করা হয়েছে। চাওড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সভাপতি মোঃ আহুরুজ্জামান আলমাস খান বাদী হয়ে এ মামলা করেন।

মুক্তিযোদ্ধা, কৃষি অফিসার, কলেজ অধ্যক্ষ, প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষকের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসী কার্মকান্ডের অভিযোগ এনে মামলা দায়েরের ঘটনায় মানুষের মাঝে ক্ষোভ, হাস্যকর এবং চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার দাবীতে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় আমতলী উপজেলার চাওড়া ইউনিয়নবাসীর উদ্যোগে তালুকদার বাজারে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভার আয়োজন করা হয়। ওই মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভায় কয়েক হাজার নারী-পুরুষ অংশ নেন।

জানাগেছে, উপজেলার চাওড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে গত সোমবার সন্ধ্যায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোঃ আখতারুজ্জামান বাদল খানের মামাতো ভাই উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মোঃ মাহবুব ইসলাম ও হত্যা মামলার আসামী মহিবউল্লাহ কিরণসহ ১০-১২ জন দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে পাতাকাটা বাঁধে উপরে স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট মহসিন হাওলাদারের কর্মী শানু হাওলাদারের উপর হামলা চালায় এবং দোকান ভাংচুর করে।

এ ঘটনায় উভয় পক্ষের মধ্যে মারধর ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। ওই সময় আওয়ামী লীগ কর্মীরা স্বতন্ত্র প্রার্থীর দুইটি মোটর সাইকেল পুড়িয়ে এবং ৩ টি মোটর সাইকেল ভাংচুর করে। এতে উভয় পক্ষের ১২ কর্মী আহত হয়।

এ ঘটনায় স্বতন্ত্র প্রার্থীর ভাইয়ের ছেলে মোঃ মনিরুল ইসলাম বুধবার রাতে বাদী হয়ে উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মোঃ মাহবুব ইসলামকে প্রধান ও হত্যা মামলার আসামী মোঃ মহিবউল্লাহ কিরণসহ ৩৫ জনকে আসামী করে মামলা দায়ের করেন। ওই রাতেই আওয়ামী লীগ প্রার্থীর ছোট ভাই মোঃ আহুরুজ্জামান আলমাস খান বাদী হয়ে সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের অভিযোগ এনে অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মকর্তা বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম মোস্তফাকে প্রধান, চাওড়া চন্দ্রা কারিগড়ি কলেজের অধ্যক্ষ মোঃ সুজাউদ্দিন মাহমুদ,চিলা হাসেম বিশ^াস মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ মোয়াজ্জেম হোসেন ,সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক রাসেল মৃধা ও চাওড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ইউপি সদস্য সফেজ উদ্দিন প্যাদাকে আসামী করে ৪৭ জনের নামে পাল্টা মামলা দায়ের করেন।

এ মামলার খবর বৃহস্পতিবার ছড়িয়ে পরলে আমতলী উপজেলার চাওড়া ইউনিয়নের মানুষের মাঝে ক্ষোভ, হাস্যকর এবং চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। তারা এ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবীতে ওইদিন সন্ধ্যায় চাওড়া ইউনিয়ন বাসীর উদ্যোগে তালুকদার বাজারে কয়েক হাজার নারী-পুরুষ মানববন্ধনে অংশ নেন। মানববন্ধন শেষে তারা প্রতিবাদ সভা করেন। এ মামলার আসামী অবসরপ্রাপ্ত কৃষি অফিসার আব্দুল জব্বার মল্লিকের সভাপতিত্বে ঘন্টাব্যাপী মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট মোঃ মহসিন হাওলাদার, বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ মোঃ গোলাম মোস্তফা, শিক্ষক আলতাফ হোসেন,
ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ইউপি সদস্য মোঃ সফেজ উদ্দিন প্যাদা, জাকির হোসেন, উপজেলা যুবলীগ সদস্য মোঃ নজরুল ইসলাম মাদবর ও মোঃ আলাউদ্দিন মুন্সি প্রমুখ। মানববন্ধনে বক্তারা দ্রæত এ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবী জানান।

মামলার প্রধান আসামী অবসরপ্রাপ্ত ব্যাংক কর্মকর্তা বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ গোলাম মোস্তফা বলেন,আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোঃ আখতারুজ্জামান বাদল খান একজন দুর্নীতিবাজ। আমি তাকে সমর্থণ না দেয়ায় আমাকে মিথ্যা মামলায় আসামী করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন,একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা হয়ে বৃদ্ধ বয়সে সন্ত্রাসী মামলার প্রধান আসামী হয়েছি। একজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে এটাই আমার বড় পাওনা। আমি প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার কাছে এ ঘটনার সুবিচারের দাবী জানাই।

স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট মোঃ মহসিন হাওলাদার বলেন, একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা, অবসরপ্রাপ্ত কৃষি অফিসার, কলেজ অধ্যক্ষ, মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও একজন সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষকের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের অভিযোগ এনে মিথ্যা মামলায় আসামী করা হয়েছে।

এটা অত্যান্ত লজ্জাজনক ও হাস্যকর। তিনি আরো বলেন, আওয়ামী লীগ প্রার্থী আখতারুজ্জামান বাদল খান আমার কর্মী ও সমর্থকদের হয়রানী করতে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছেন।দ্রæত এ মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের দাবী জানাই। আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোঃ আখতারুজ্জামন বাদল খান বলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী অ্যাডভোকেট মহসিনের নেতা কর্মীরা আমার মোটর সাইকেল ও নির্বাচনী কার্যালয় ভাংচুর করায় মামলা দেয়া হয়েছে। একজন বীর মুক্তিযোদ্ধাকে মামলার প্রধান আসামী করা হয়েছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি কোন জবাব না দিয়ে ফোন কেটে দেন।

আমতলী থানার ওসি মোঃ শাহ আলম হাওলাদার বলেন, মামলা দুটি সঠিক তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সম্পাদনা: আমাদের বরিশাল ডেস্ক

শেয়ার করতে ক্লিক করুন:

আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
(মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। amaderbarisal.com-এর সম্পাদকীয় অবস্থানের সঙ্গে এসব অভিমতের মিল আছেই এমন হবার কোনো কারণ নেই। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু বা এর যথার্থতা নিয়ে amaderbarisal.com কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো ধরনের কোনো দায় নেবে না।)
শের-ই বাংলা মেডিকেলের নতুন পরিচালক ডা. সাইফুল ইসলাম
রমজানের চাঁদ দেখা গেছে, কাল রোজা
বরিশালে ডায়রিয়ার প্রকোপ
করোনা: জেলায় নতুন শনাক্তের বেশিরভাগই বরিশাল নগরের
গত ২৪ ঘণ্টায় বরিশালে আরও ৫১ জনের করোনা শনাক্ত ও মৃত্যু ৯ জনের
Recent: Mayor Hiron Barisal
Recent: Barisal B M College
Recent: Tender Terror
Kuakata News

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
আমাদের বরিশাল ২০০৬-২০২০

প্রকাশক ও নির্বাহী সম্পাদক: মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, সম্পাদক: রাহাত খান
৪৬১ আগরপুর রোড (নীচ তলা), বরিশাল-৮২০০।
ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, ই-মেইল: hello@amaderbarisal.com