AmaderBarisal.com Logo

ঘটনা তদন্তে পুলিশ সুপার মাঠে

বানারীপাড়ায় মাদক ও অস্ত্র ব্যবসায়ীর জন্য যা করলেন সাংবাদিক ও স্বেচ্ছা সেবকলীগ নেতা !

নিজেস্ব প্রতিবেদক
আমাদেরবরিশাল.কম

২১ আগস্ট ২০১৫ শুক্রবার ৪:৪৭:০৭ অপরাহ্ন

বরিশাল সংবাদ মানচিত্রবানারীপাড়ার পৌরশহরের রায়েরহাট থেকে মাদক ও অস্ত্র ব্যবসায়ীকে আটকের পরে মোটা অংকের বিনিময়ে ছড়িয়ে নেওয়ার ঘটনা নিয়ে ব্যাপক তোলপাড় সৃস্টি হয়েছে। ওই ঘটনা তদন্তের জন্য খোদ পুলিশ সুপার নিজেই মাঠে নেমেছেন। ইতোমধ্যে তিনি ঘটনাস্থল রায়ের হাট এলাকা পরিদর্শন করেছেন। এ সময়ে তিনি ওই ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীদের সাথে কথাও বলেছেন।

স্থানীয় একাধীক সূত্র জানায়, গত সোমবার রাতে পার্শ্ববর্তী উপজেলা উজিরপুরের গুঠিয়া এলাকার চিহ্নিত মাদক ও অস্ত্র ব্যবসায়ী আনিচুর রহমান ওরেফে ৬ইঞ্চি আনিচকে পুলিশ রায়েরহাট এলাকা থেকে ৩০ পিচ ইয়াবাসহ আটক করে। পরবর্তীতে ইয়াবাসহ আনিচকে ছাড়িয়ে নেওয়ার জন্য পুলিশের সাথে মধ্যস্ততার জন্য ছুটে আসেন বানারীপাড়ার প্রভাবশালী সাংবাদিক রাহাদ সুমন ও উপজেলা সেচ্ছা সেবক লীগ নেতা সুলতান হোসেন এবং যুবদল নেতা কামাল। তারা থানার এসআই জাকারিয়া, আল মামুন, এএসআই ফারুক ও কনস্টবেল মাহবুবকে দেড়লাখ টাকা ঘুষের বিনিময়ে তাকে ছাড়িয়ে নেয়া। ঘটনাটি বানারীপাড়ায় জানাজানি হলে ব্যাপক তোলপার সৃস্টি হয়। একই সাথে স্থানীয় আওয়ামীলীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতা-কর্মীদের মাঝে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়।

বিষয়টি নিয়ে দলের নেতা-কর্মীরা স্থানীয় সংসদ সদস্য এ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুসের কাছে অভিযোগ করলে তিনি ঘটনার সাথে জড়িতদের আটকের জন্য পুলিশ সুপারকে নিদের্শ দেন। পুলিশ সুপার সাংসদের নিদের্শ পেয়ে গত মঙ্গলবার সকালে তদন্তের জন্য ঘটনাস্থল বানারীপাড়ার রায়ের হাট বাজারে পরিদর্শন করেন এবং প্রতক্ষদর্শীদের সাথে কথা বলেন।

পুলিশ সুপার আকতারুজ্জামান বলেন, অভিযোগ পাওয়ার সাথে সাথে আমি নিজের ঘটনাস্থান পরিদর্শন করেছি। এর জন্য ওই এলাকার কয়েকজনের সাথে কথা হয়েছে। ওই ঘটনায় আরো স্বাক্ষীর সাক্ষ গ্রহণ করা হবে। এ জন্য পুরো বিষয়টির তদন্তভার আমি নিজে নিয়েছি। ঘটনার সতত্যা পাওয়া পাওয়া গেলে জড়িত সকলের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

উল্লেখ্য, আনিচের বিরুদ্ধে বানারীপাড়া ও উজিরপুর থানায় একাধি মাদক ও অস্ত্র আইনের মামলা রয়েছে। এছাড়া কয়েক বছর আগে ১৭ হাজার ফেন্সিডিলসহ সীমান্ত এলাকায় গোয়েন্দা পুলিশের হাতে ধারা পরেছিলো। এসময় সে কয়েক মাস কারান্তরীন ছিলেন। পরবর্তীতে ২০১৩ সালে খুলনায় দুইটি নাইন এম এম পিস্তলসহ আটক হওয়ার পর তার বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের হয়। ওই মামলা এখনো চলোমান, ওই মামলায় সে গতবছর জামিনে মুক্ত হয়ে বানারীপাড়ায় পুনরায় মাদক ব্যবসা শুরু করে বলে একাধীক সূত্র জানিয়েছে।



সম্পাদনা: জপ / বরিশাল ডেস্ক


প্রকাশক: মোঃ মোয়াজ্জেম হোসেন তালুকদার    সম্পাদক: মো: জিয়াউল হক
সাঁজের মায়া (২য় তলা), হযরত কালুশাহ সড়ক, বরিশাল-৮২০০। ফোন : ০৪৩১-৬৪৫৪৪, মুঠেফোন : ০১৮২৮১৫২০৮০ ই-মেইল : [email protected]
আমাদের বরিশাল ডটকম -এ প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।